সোমবার , ১১ ডিসেম্বর ২০২৩ | ১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. অর্থনীতি
  2. আইন ও আদালত
  3. আওয়ামীলীগ
  4. আন্তর্জাতিক
  5. খেলাধুলা
  6. জাতীয়
  7. তথ্য-প্রযুক্তি
  8. ধর্ম
  9. বি এন পি
  10. বিনোদন
  11. বিশেষ সংবাদ
  12. রাজধানী
  13. লাইফস্টাইল
  14. শিক্ষা
  15. শিল্প ও সাহিত্য

আশুলিয়ার চাঞ্চল্যকর দুরুল হুদা হত্যা কান্ডের পলাতক প্রধান আসামী গ্রেফতার

প্রতিবেদক
bangladesh ekattor
ডিসেম্বর ১১, ২০২৩ ৯:৪০ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশ একাত্তর; অনলাইন নিউজ:

ঢাকার আশুলিয়া পলাশবাড়ী এলাকার চাঞ্চল্যকর ও ক্লুলেস দুরুল হোদা (৪২) হত্যাকান্ডের পলাতক আসামী মতিউর রহমান মতিন (২৫)’কে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব।

র‍্যাব-৪ ও র‍্যাব-৫ এর যৌথ আভিযানিক দল ১০ ডিসেম্বর ২০২৩ তারিখ রাতে ঢাকা জেলার আশুলিয়া থানাধীন ধামসোনা ইউনিয়নের পলাশবাড়ী এলাকার চাঞ্চল্যকর ক্লুলেস দুরুল হোদা (৪২) হত্যাকান্ডের প্রধান আসামী মতিউর রহমান মতিন (২৫)’কে গ্রেফতার করতে সমর্থ হয়।

২। গত ২০ নভেম্বর ২০২৩ খ্রি. তারিখ ঢাকা জেলার আশুলিয়া থানার পলাশবাড়ি বাতানটেক এলাকার একটি ভাড়া বাসা হতে দুরুল হোদা (৪২) নামের জনৈক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

ভিকটিমের স্ত্রী খাতিজা (২৮) একই দিন দুপুর ০২.৩০ ঘটিকার সময় পোশাক কারখানা থেকে বাসায় ফিরে নিজের স্বামীর মরদেহ দেখতে পেলে তার আর্তনাদে আশপাশের লোকজন ঘরের ভিতর প্রবেশ করে দেখতে পায় যে, দুরুল হোদার হাত-পা বাঁধা এবং মুখে স্কচটেপ দিয়ে আটকানো নিথর দেহ ঘরের মেঝেতে পড়ে আছে।

উক্ত ঘটনাটি এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করে এবং বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রনিক মিডিয়াসহ বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক আলোচনা সৃষ্টি করে। থানা পুলিশের পাশাপাশি র‍্যাব-৪ এবং র‍্যাব-৫ এর আভিযানিক দল তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে উক্ত হত্যার রহস্য উদঘাটন এবং অপরাধীকে আইনের আওতায় আনতে ছায়াতদন্ত শুরু করে।

ভিকটিমের স্ত্রী খাদিজা ও গ্রেফতারকৃত আসামী মতিউর রহমান মতিন একই পোশাক কারখানায় চাকুরী করার সুবাদে এক পর্যায়ে তাদের মাঝে বিবাহ বর্হিভূত প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠলে ভিকটিম দুরুল হোদা ও তার স্ত্রী মধ্যকার প্রায়শই তুমুল ঝগড়া-বিবাদ হতো। পরবর্তীতে ভিকটিমের স্ত্রী খাতিজা খাতুন ও ধৃত আসামীর যোগসাজশে তাকে হত্যার পরিকল্পনা করে। পরিকল্পনার অংশ হিসেবে ভিকটিমের স্ত্রী গত ১৯ নভেম্বর ২০২৩ খ্রি. রাতের খাবার শেষে ভিকটিম দুরুল হুদাকে তার নিয়মিত ঔষধের পাশাপাশি কৌশলে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে দেয় যার তীব্র প্রতিক্রিয়ায় ভিকটিম অচেতন হয়ে পড়লে আসামী মতিউর ভিকটিমের বাসায় প্রবেশ করে।

ইতোপূর্বে গ্রেফতারকৃত আসামী ভিকটিমের স্ত্রী খাতিজা খাতুনসহ ভিকটিমের হাত-পা বেঁধে ও মুখ পেচিয়ে শ্বাসরোধ করে এবং ভিকটিমের মুখমণ্ডল ও মাথায় ইট দিয়ে আঘাত করে মৃত্যু নিশ্চিত করে মেঝেতে ফেলে রাখে। পরবর্তীতে ঘটনাস্থল হতে পালিয়ে নওগাঁ জেলায় নিজ এলাকায় আত্মগোপন করে মতিউর।

ভিকটিম দুরুল হোদা (৪২) চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ থানার উত্তর ফতেহপুর গ্রামের বাসিন্দা।

আত্মগোপনে থাকা অবস্থায় র‍্যাব-৪ এবং র‍্যাব-৫ এর যৌথ আভিযানিক দল নওগাঁ জেলার নিয়ামতপুর থানাধীন বালাহান্দা এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে আসামী ১ মতিউর রহমান মতিন (২৫), গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধৃত আসামি ভিকটিমের স্ত্রীর সঙ্গে প্রেম ও হত্যার কথা শিকার করে।

গ্রেফতারকৃত আসামীর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।

সর্বশেষ - অন্যান্য

আপনার জন্য নির্বাচিত