রাজধানী, রাজনীতি, সারাদেশ

আমাকে চাদাঁ না দিলে বাসের চাকা ঘুরবেনা

%e0%a6%86%e0%a6%ae%e0%a6%be%e0%a6%95%e0%a7%87-%e0%a6%9a%e0%a6%be%e0%a6%a6%e0%a6%be%e0%a6%81-%e0%a6%a8%e0%a6%be-%e0%a6%a6%e0%a6%bf%e0%a6%b2%e0%a7%87-%e0%a6%ac%e0%a6%be%e0%a6%b8%e0%a7%87%e0%a6%b0

অনলাইন ডেক্সঃ   ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগ সহ-সভাপতি আরিফুল ইসলামকে চাঁদাবাজির অভিযোগে গত, শনিবার রাতে রাজধানীর মিরপুর মডেল থানাধীন এরিয়ার লাভ রোড  এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করে মিরপুর মডেল থানা পুলিশ।

জানা যায় প্রজাপতি পরিবহন নামে একটি বাস কোম্পানির কাছে মাসে ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেছিলেন এ ছাত্রলীগ নেতা। চাঁদা না দেওয়ায় শনিবার রাতে ওই কোম্পানির ৫টি বাসের সব যাত্রী নামিয়ে দিয়ে সেগুলো নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে পরিবহনের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মারধর করে আরিফ ও তার বাহিনীরা। এ সময় তারা বাসের চালক ও সহকারীদের হুমকি দেন, চাঁদা না দিলে কোনো বাসের চাকা ঘুরবে না এ রাস্তায়। শনিবার রাতেই মিরপুর মডেল থানায় মামলা করে প্রজাপতি পরিবহন রোড ইনচার্জ মোঃ তানজিল।(মামলা নম্বর-৩৯) মামলায় ছাত্রলীগ নেতা আরিফুল ইসলাম ছাড়াও আসামী করা হয় অচেনা আরও ১৫ জনকে।

তিন দিনের রিমান্ড চেয়ে গতকাল আরিফুল ইসলামকে আদালতে পাঠান মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মিরপুর থানার এসআই মোঃ শাহ আলম। শুনানি শেষে বিকালে সিএমএম আদালতের হাকিম মঈনুল ইসলাম রিমান্ড নামঞ্জুর করে আরিফকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

মোঃ তানজিল বলেন, রাস্তায় গাড়ি চললেই প্রতি মাসে ২০ হাজার টাকা করে দিতে হবে বলে বেশ কিছুদিন ধরে প্রজাপতি পরিবহনের এমডি রফিকুল ইসলামকে হুমকি দিয়ে আসছিলেন আরিফুল ইসলাম। তিনি আরও বলেন, আমাকে চাঁদা না দিলে বাসের চাকা ঘুরবেনা শেষমেস চাঁদা দিতে অপারগতা প্রকাশ করায় গত শনিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে মিরপুরের প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের সামনে থেকে প্রজাপতি পরিবহনের ৫টি যাত্রীবাহী বাস থামান আরিফুল ইসলাম ও তার সহযোগিরা।

প্রকাশ্য সড়কে সন্ত্রাসী স্টাইলে বাস থেকে যাত্রীদের নামিয়ে গাড়িগুলো পুলিশের মিরপুর বিভাগের ডিসি কার্যালয়ের অদূরে রাস্তায় আটকে রাখেন তারা। মারধর করে বাস থেকে চালক-হেলপারদেরও নামিয়ে দিয়ে সেগুলো নিয়ন্ত্রণে নেন। বিষয়টি মিরপুর থানা পুলিশকে জানালে অভিযান চালিয়ে আরিফুল ইসলামকে রাতেই পুলিশ গ্রেপ্তার করে। তবে তার সহযোগীরা পালিয়ে যায়।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই মোঃ শাহ আলম বলেন, জব্দকৃত ৫টি বাস বর্তমানে পুলিশের হেফাজতে রয়েছে। অন্য আসামিরা গা ঢাকা দিয়েছে তাদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

চাঁদাবাজির অভিযোগের বিষয়ে জানতে গতকাল বেলা সাড়ে ১১টার দিকে মিরপুর মডেল থানায় ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগ সহসভাপতি আরিফুল ইসলাম আরিফের দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

Print Friendly, PDF & Email
Comments
Share
Avatar

bangladesh ekattor

Reply your comment

Your email address will not be published. Required fields are marked*

two × three =